হারানো মোবাইল ফোন খুঁজে পাবেন যে উপায়ে।

কিভাবে হারানো মোবাইল খুঁজে পাওয়া যায় । মোবাইল চুরি হলে করনীয়

হারানো মোবাইল ফোন খুঁজে পাবেন যে উপায়ে।

 

প্রতিদিন অসংখ্য মোবাইল ফোন চুরি হচ্ছে অসাবধানতার কারনে। সখের মোবাইল ফোনটি হারানোর পরে অনেকে মানুষিক ভাবে ভেঙ্গে পরেন তাই না। বর্তমান সময়ে মোবাইল ফোনের গুরুত্ব অনেক যা বলে শেষ করার মত না। মোবাইলে থাকে অতি প্রয়োজনি ও অনেক ডুকুমেন্ট ও ফোন নাম্বার যা চুরি হওয়ার পরে অনেক ক্ষতির সম্মুখীন হতে হয় আমাদের। আজকে আমরা সেই সকল ভাই ও বোনদের জন্য এই ব্লগ পোস্টটি লেখা শুরু করেছি যে, কিভাবে হারানো মোবাইল খুঁজে পাওয়া যায় অথবা আপনার হাতের মোবাইল চুরি হলে করনীয় কি কি। তাই ধৈর্য সহকারে আমাদের পোস্টটি পড়ুন, আজকে না হলেও ভবিষ্যতে আপনার এই জ্ঞানটি কাজে লাগবে। একটি মাত্র আর্টিকেল পড়লে আপনি জানতে পারবেন কিভাবে হারানো মোবাইল খুঁজে পাওয়া যায়।

 

Imei নাম্বার দিয়ে মোবাইল লোকেশন

 

জি হ্যাঁ আপনি ঠিকই শুনেছেন Imei নাম্বার দিয়ে হারানো মোবাইল ফোনের লোকেশন পাওয়া যায়। কিন্তু উক্ত কাজটি আপনি করতে পারবেন না । সে এলাকায় আপনার মোবাইল ফোনটি চুরি হয়েছে সেই এলাকার থানাতে আপনাকে জিডি বা সাধারণ ডায়েরি করতে হবে। থানায় জিডি করতে হলে আপনার হারানো ফোনের আইএমইআই নাম্বার জানতে হবে। আইএমইআই জানা থাকলে ডিউটি অফিসার আপনার জিডিটি গ্রহন করবে। Imei নাম্বার জানা থাকলে আপনার ফোনটি খুঁজতে সহজ হবে। যখনি চোর ফোনে সিম কার্ড প্রবেশ করতে তার ৭ থেকে ১৪ দিনের মাঝে পুলিশ চোর কে সনাক্ত করতে পারবে সহজে। অনেক সময় অনেকে Imei না জানার ফলে ফোনটি খুঁজে পেতে অনেক সময় লাগে। 

 

কিভাবে হারানো মোবাইল খুজে পাওয়া যায়

 

আপনার সখের ফোনটি হারিয়ে গেলে অথবা চুরি হয়ে গেলে আপনি অবশ্যই মোবাইলটি খুজে পাবেন। এর জন্য আপনাকে ফোনের সকল কাগজ পত্র নিয়ে নিকতত্ম থানায় যোগাযোগ করতে হবে। হারানো মোবাইল খুজে পাওয়ার জন্য চুরি হওয়া ফোনের আইএমইআই দিয়ে জিডি করতে হবে। বর্তমানে আপনি চাইলে ঘরে বসে নিজে নিজে অনলাইনে জিডি করতে পারবেন।

 

আরো দেখুনঃ মোবাইল ফোন বিক্রয়ের চুক্তিপত্র । ক্রয় ও বিক্রয়ের আগে করণীয়

 

মোবাইল চুরি হলে করনীয়

 

যে কোন ফোন চুরি হলে আপনি থানাতে অথবা অনলাইনের মাধ্যমে জিডি করতে পারবেন একদম ফ্রিতে কোন প্রকার ঝামেলা ছাড়াই। মোবাইল ফোন চুরি হলে আপনার প্রধান করনীয় হলো ফোনটি সিকিউরিটি লক করে ফেলা যা আপনি জিমেইল একাউন্ট দিয়ে করতে পারবেন। এর ফলে আপনার পার্সোনাল সকল তর্থ্য নিরাপদ থাকবে ।

১। নিকটতম থানায় জিডি করতে হবে।

২। ফোনের আইএমইআই সাথে করে থানায় জেতে হবে।

৩। চুরি যাওয়া মোবাইল এর নাম মডেল ও ফোন নাম্বার জানাতে হবে।

৪। থানায় জিডি একদম বিনামূল্যে করতে পারবেন।

৫। বর্তমানে অনলাইনের মাধ্যমেও জিডি করা যায়।

 

ফোনের Imei নাম্বার কোথায় পাবো?

 

অনেকে ফোন চুরি হওয়ার পরে কি করবেন সেটা বুঝে উঠতে পারেন না। এছাড়া থানায় জিডি করতে গিয়েও অনেক ঝামেলায় পরে থাকেন। মনে রাখতে হবে আইএমইআই নাম্বার হলো একটি ফোনের পরিচিতি। তাই ফোনটির আইএমইআই নাম্বার ভবিষ্যৎ প্রয়োজনের কারণে সংগ্রহ করে রাখতে হবে। ভবিষ্যৎ প্রয়োজনের জন্য ডায়াল করুন *#06# এবং আইএমইআই নাম্বারটি নোট করে রাখুন। এছাড়া আপনি ফোনের আইএমইআই নাম্বার ফোনের বক্স এ দেখতে পারবেন।

 

অনলাইনে জিডি করার নিয়ম

 

বর্তমানে আপনি দেশের সকল থানায় অনলাইন জিডি করতে পারবেন ঘরে বসে থেকে। এর ফলে আর আগের মতো জিডি করতে গিয়ে হয়রানি শিকার হতে হবে না। এর জন্য আপনাকে আর পুলিশকে কোন প্রকার টাকা পয়সা দিতে হবে না। অনলাইন জিডি করতে হলে আপনাকে আপনার মোবাইল এর যে কোন ব্রাউজার থেকে ভিজিট করতে হবে gd.police.gov.bd ওয়েব সাইটি। 

 

অনলাইন জিডি আবেদন করতে যা যা প্রয়োজন

 

অনলাইনের মাধ্যমে জিডি করতে হলে আপনার মোট ৩টি গুরুত্বপূর্ণ জিনিস প্রয়োজন হবে। আপনার জাতীয় পরিচয় পত্রের নম্বর, আপনার সচল মোবাইল নম্বর এবং জন্ম তারিখ দিয়ে আপনাকে রেজিস্ট্রেশন করতে হবে। যে যে জন্য আপনি অনলাইনে জিডি করতে পারবেন নিচে তালিকা আকারে প্রদান করা হলো।

 

১। সার্টিফিকেট হারিয়ে গেলে অনলাইন জিডি করতে পারবেন।

২। ফোন চুরি হলে জিডি করতে পারবেন এর জন্য উক্ত ফোনের Imei নাম্বার দিতে হবে।

৩। গুরুত্বপূর্ণ কাগজ হারিয়ে গেলে জিডি করা যাবে।

৪। ন্যাশনাল আইডি কার্ড হারিয়ে গেলে জিডি করতে পারবেন

৫। পাসপোর্ট হারিয়ে গেলে জিডি করা যাবে।

এছাড়া আপনি সকল প্রকার আইনি সহযোগিতা পাবেন একটি মাত্র ওয়েব সাইট থেকে।

Spread the love

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *